আজ বৃহস্পতিবার, ১৫ই ফাল্গুন, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ , ২৭শে ফেব্রুয়ারি, ২০২০ ইং,দুপুর ২:৪০

মির্জা মাজহারুল ইসলাম মিলন এর সমাজ সেবাই কর্ম


সজীব মোল্ল্যা,,মধুখালি প্রতিনিধিঃ ফরিদপুর জেলার মধুখালী উপজেলার কর্মবীর যুবক মির্জা মাজহারুল ইসলাম মিলন অল্প বয়সে সকলের প্রিয় পাত্র হয়ে উঠেছেন। তার রাজনৈতিক দর্শন সকলের
কাছে জনপ্রিয়তা পেয়েছে। সকাল থেকে রাত অবদী তার ছুটে চলা সাধারন মানুষের দ্বারে দ্বারে। তার কথা আর কাজের একটি চমৎকার অনুভুতি মানুষের কাছে যেন এক নতুন সূর্যের দীপ্ত আলোর
আভা। বয়সের কোনো ভেদাভেদ নেই, ধর্মের কোনো পক্ষ নেই, ধনী আর গরীবের কোনো তফাৎ নেই সবাই যেন তার কাছে সমান। সকলের প্রয়োজনে নিজেকে বিলিয়ে দেয়া তার আদর্শ। এমন কজন মির্জা মাজহারুল ইসলাম মিলন। যার গর্বিত পরিচয় তিনি একজন বীর মুক্তিযোদ্ধা মৃত হাজী মির্জা আকরামুজ্জামানের সন্তান। বাবার আদর্শ আর দেশ প্রেম তাকে সমাজকর্মী হিসেবে নিজেকে প্রতিষ্ঠা করার অনুপ্রেরণা দিয়েছে। গ্রামের মেঠো পথ, হাটবাজার, লোকালয় আর সাধারন মানুষের বুকে বুক রেখে, কাধে কাধ রেখে স্বেচ্ছাশ্রম দেয়া যেন তার প্রতিদিনের রুটিন হয়ে দাড়িয়েছে।ফরিদপুর জেলার মধুখালী থানার মধুখালী বাজারে সাথেই তার বসতবাড়ি। সরেজমিনে সেখানে গিয়ে জানা যায় তার মানব সেবার অনণ্য অবদানের নানান চিত্র। তিনি রয়েছেন মধুখালী উপজেলার নানান সংগঠনের দায়িত্বে। মির্জা মাজহারুল ইসলাম মিলন মধুখালী মুক্তিযোদ্ধা প্রজন্মলীগের সাবেক সদস্য সচীব, মধুখালী শ্রমিকলীগের সাবেক আহবায়ক,যুবলীগের সদস্য হিসেবে প্রতিদন্দিতা করছেন, মধূখালী বাজার বনিক সমিতির সাধারন সম্পাদক, মধুখালী মাইক্রো মালিক সমিতির সাধারন সম্পাদকসহ আরো অনেক স্বেচ্ছাসেবক সংগঠনের দায়িত্বে রয়েছেন।
মধুখালী এলাকার সাধারন মানুষের প্রয়োজনে তার অবদান বন্ধুসুলভ। তার রাজনৈতিক ও সমাজ সেবার বিষয়ে কথা হলে তিনি সাংবাদিকদের জানান, আমি একজন মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের
সন্তান। আমার বাবা ছিলেন একজন সাধারন মানুষ। তিনি ধর্মবর্ণ সকলের উধ্বের্ রেখে সবার সাথে মিশতেন। তার কাছ থেকেই দেশ প্রেমের আদর্শ শেখা। বাবার একটি কথাই ছিলো হাজার কথার
সমান মানুষ ভজলে সোনার মানুষ হবি। আজ বাবা বেচে নেই তার কথাকে সব সময় স্মরণ রেখে আমার পথচলা।আমি মানুষ ভজি। আর মানুষ আমাকে ভালোবাসে ব্যাস এর মাঝেই আমার সকল
কর্ম নিহিত রয়েছে। আমি সমাজের জন্য, দেশের জন্য, আগামী প্রজন্মের জন্য ভালো কিছু করতে চাই। আমি চাই সমাজটা মাদকমুক্ত হোক, সমাজটা শিক্ষার আলোয় আলোকিত হোক। সবাই ভালো থাকুক। এমন একজন নিবেদিত মানুষের কাছ থেকে মধুখালীবাসী ভালো কিছু পাবে বলেই সকলের আশা।

     আরো পড়ুন