Spread the love


সঞ্জিব দাস: ফরিদপুর জেলার পুলিশ সদস্যদের মাসিক দুদিনের বেতনের টাকায় করোনা ভাইরাস প্রাদুর্ভাবে কর্মহীন হয়ে পড়া দুইশত পরিবারের মাঝে হাসি ফুটেছে। গত কয়েকদিন যাবত দেশের এই উদ্ভূত পরিস্থিতি সেবা দেওয়ার পাশাপাশি তারা এখন কর্মহীন হয়ে পড়ে মানুষের মাঝে খাদ্য সহায়তা দিয়ে হাত বাড়িয়ে দিয়েছে। এসব পরিবার প্রতি তারা নিত্য প্রয়োজনীয় চাল, ডাল, আলু, তেল, সাবান, লবনসহ বিভিন্ন খাদ্য দ্রব্য নিয়ে হাজির হচ্ছেন তাদের বাড়িস বাড়ি। এরই মধ্যে পুলিশের এই মহতি উদ্যোগকে সাধুবাদ জানিয়েছে জেলার বিশিষ্টজনেরা।
জানাযায়, করোনা ভাইরাসের কারণে ঘরে থাকা অসহায় দুস্থ ও দরিদ্র পরিবারকে খুঁজে বের করে তাদের খাদ্য সামগ্রী বিতরণ করা শুরু করে ফরিদপুর জেলা পুলিশের সদস্যরা। পুলিশ সুপার মোঃ আলিমুজ্জামানের নির্দেশনায় জেলার বিভিন্ন উপজেলায় খাদ্য সামগ্রী নিয়ে ছুটে যাচ্ছে পুলিশের একটি দল। ফরিদপুর জেলা পুলিশের সকল সদস্যর দুইদিনের বেতনের সম পরিমান টাকা তুলে দেয়া হচ্ছে পুলিশ সুপারের কাছে। সেই অর্থ দিয়েই কেনা হচ্ছে নিত্য প্রয়োজনীয় চাল, ডাল, আলু, তেল, সাবান, লবনসহ বিভিন্ন খাদ্য দ্রব্য। সোমবার পুলিশের তরফ থেকে ফরিদপুর কোতয়ালী থানা, নগরকান্দা থানা ও সদরপুর থানা থেকে অনেকের মাঝে খাদ্য সামগ্রী বিতরণ করা হয়। পরে দরিদ্র বেশ কয়েকজন ব্যক্তির বাড়ি বাড়ি গিয়ে পুলিশ সদস্যরা খাদ্য সামগ্রী বিতরণ করেন।
মঙ্গলবার সকাল থেকে মধুখালী, চরভদ্রাসন, বোয়ালমারী, ভাঙ্গা থানা থেকে দরিদ্রদের মাঝে খাদ্য সামগ্রী বিতরণ করা শুরু হয় এরপর বুধবার সকাল থেকে সদর উপজেলা সহ বাকি উপজেলায় এই বিতরণ কর্মসূচি চলছে।
এ ব্যাপারে ফরিদপুরের পুলিশ সুপার মোঃ আলিমুজ্জামান জানান, নিয়মিত কার্যক্রমের পাশাপাশি করোনার কারণে যেসব অসহায় মানুষ কষ্টের মধ্যে দিনযাপন করছেন সেইসব অসহায় মানুষের পাশে দাঁড়াচ্ছে পুলিশ। জেলা পুলিশের সকল সদস্যের দুইদিনের বেতন এ ফান্ডে দেয়া হচ্ছে। এখান থেকেই প্রতিদিন বিভিন্ন স্থানের দরিদ্র মানুষের মাঝে খাদ্য সহায়তা করা হচ্ছে। এই পরিস্থিতি যতদিন চলবে আমরা পুলিশের তরফ থেকে এই সব পরিবার গুলোকে ততদিন পর্যন্ত খাদ্য সহয়তা করে যাব বলে পুলিশ সুপার জানান।


Spread the love