Spread the love

রুপসা প্রতিনিধি: খুলনার রূপসা উপজেলার নৈহাটি ইউনিয়নের দেবীপুর গ্রামে করোনা ভাইরাসের উপসর্গ নিয়ে সালেহা বেগম (৬০) নামে এক নারীর মৃত্যু হয়েছে। সোমবার রাতে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে সে মারা যায় ।
ইউনিয়নের দেবীপুর গ্রামের ইসমাইল পাইকের স্ত্রী ছিলেন।

স্থানীয় বাসিন্দা রফিকুল ইসলাম জানান, সালেহা বেগম দীর্ঘদিন ধরে তার বড় ছেলে মামুন পাইকের সাথে ঢাকায় বসবাস করতেন। দীর্ঘ দিন ধরে তিনি কিডনি, ডায়াবেটিকস সহ কয়েকটি রোগে ভুগছিলেন।
গত ২৬ মার্চ তিনি ঢাকা থেকে বাড়িতে আসেন। তার সাথে রাসেল (২২) নামে এক নাতি সেও বাড়িতে আসেন।
বাড়িতে আসার পর থেকেই কাশি, জ্বর, সর্দি ও কাশিতে দুইজন অসুস্থ হয়ে পড়েন। পরবর্তীতে ৭ দিন আগে জ্বর সর্দি কাশির জন্য উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সসহ বিভিন্ন গ্রাম্য ডাক্তার কাছে চিকিৎসা নেন।
অবস্থার পরিবর্তন না হওয়ায় গতকাল (সোমবার)বিকালে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যান। রাতে তিনি মারা যান।

রূপসা উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা. আনিসুর রহমান জানান, জ্বর, সর্দি, কাশিতে আক্রান্ত হলেও তিনি তথ্য গোপন করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স থেকে চিকিৎসা নেন।

রূপসা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা নাসরিন আকতার জানান, যারা ওই নারীর সংস্পর্শে এসেছিলেন তাদের তালিকা তৈরীর কাজ চলছে। তাদেরকে দ্রুত হোম কোয়ারেন্টিনে পাঠানো হবে। এলাকায় পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।


Spread the love