Spread the love

রবিউল হাসান রাজিবঃ ফরিদপুরে ইতিমধ্যেই প্রধানমন্ত্রীর মানবিক সহায়তা কার্ডের মাধ্যমে খাদ্য সামগ্রী বিতরণ কার্যক্রম চলমান রয়েছে। সেই সাথে যোগ হলো আধুনিকতার নতুন আর একটি অধ্যায়। কার্ডে সংযোজন করা হয়েছে বারকোড বা QR কোড।

আজ ১৯ মে মঙ্গলবার সকালে সদর উপজেলার অম্বিকাপুর ইউনিয়নের ৫০০ কার্ডধারী পরিবারের মাঝে এই বারকোড স্ক্যানিং এর মাধ্যমে খাদ্য সামগ্রী বিতরণের উদ্বোধন করেন সদর উপজেলা নির্বাহী অফিসার মাসুম রেজা।

এ সময় আরও উপস্থিত ছিলেন সদর উপজেলা চেয়ারম্যান ও কোতোয়ালী থানা আওয়ামীলীগ সভাপতি আঃ রাজ্জাক মোল্লা, অম্বিকাপুর ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান আবু সাঈদ চৌধুরী বারী, ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ সভাপতি সোহরাব হোসেন মন্ডলসহ ইউনিয়ন পরিষদের অন্যান্য মেম্ববার ও স্থানীয় আওয়ামীলীগ নেতৃবৃন্দ।

উপজেলা নির্বাহী অফিসার মাসুম রেজা জানান, ফরিদপুরের জেলা প্রশাসক জনাব অতুল সরকারের দূরদর্শিতা ও সুদূরপ্রসারী চিন্তা ভাবনার ফল আজকের এই মানবিক সহায়তা কার্ড যা মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনায় সারা দেশব্যাপী চলমান। তার এই কার্যক্রমকে আরও আধুনিক ও যুগোপযোগী করতে আজ থেকে প্রতিটি কার্ডে সংযুক্ত করা হলো বারকোড বা QR কোড।

একজন কার্ডধারী যখন খাদ্য সহায়তা নিতে আসবে তখন এ বারকোডটি স্ক্যান করলেই তার যাবতীয় তথ্যাদি সামনে চলে আসবে। সে কতবার সহায়তা পেয়েছে, আজ পেয়েছে কিনা, কোন তারিখে পেয়েছে ইত্যাদি। তাছাড়া এসকল তথ্য একটি সফটওয়্যারের মাধ্যমে জেলা প্রশাসক মহোদয়ের কাছে থাকবে। তিনি যখন খুশি এসব তথ্য যাচাই করতে পারবেন। যদি কোন কার্ডধারী কখনও অভিযোগ করে যে তিনি কোন সহায়তা পাননি তাহলে তার কার্ডের বারকোড স্ক্যান করে এই সফটওয়্যারের মাধ্যমে জানা যাবে সে সত্য বলছে কি না?

আমরা পর্যায়ক্রমে ওএমএস, ভিজিডি সহ সকল খাদ্য বান্ধব কর্মসূচিতে যে কার্ড ব্যবহার করা হচ্ছে তাতেও এ ধরনের বারকোড সংযোজন করবো যাতে করে কোন প্রকার অনিয়ম না হয় এবং জনগণ যেন প্রতারিত না হয়।


Spread the love