রাত ৩:৪০ । ১৬ই ফাল্গুন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ । ১লা মার্চ, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ । ১৭ই রজব, ১৪৪২ হিজরি ।

শিরোনামঃ
দৈনিক আজকের সারাদেশ – ০১/০৩/২০২১ মধুখালী উপজেলা উপ – নির্বাচনে আ.লীগ প্রার্থী শহিদুল ইসলাম বিপুল ভোটে জয়ী বৃক্ষপ্রেমী এস এম আমিনুর রহমান (বুলবুল) নজর কেড়ছে সব শ্রের্ণী পেশার মানুষের খুলনার আলোচিত আকবর হত্যা মামলায় ৫ আসামীর যাবজ্জীবন রূপসায় মোটরসাইকেল ও টলীর সংঘর্ষে আহত – ২ রূপসায় স্বেচ্ছাসেবকলীগের উদ্যোগে কোভিড- ১৯ ভ্যাকসিন ফ্রি রেজিষ্ট্রেশন শুরু খুলনা হবে বিশ্বের পাঁচটি স্বাস্থ্যকর শহরের একটি -সিটি মেয়র খালেক আশাশুনি কাদাকাটি ইউপি চেয়ারম্যান পদে নির্বাচনের লক্ষে সাত প্রার্থীর প্রচার প্রচারনা চলছে শ্যামনগরে সড়ক ও জনপদের গাছ কর্তন এক শিক্ষকের প্রাচীর ভাংচুরের অভিযোগ ফরিদপুরে আওয়ামীলীগ নেতা আশরাফুজ্জামান মজনুর ৮ম মৃত্যুবার্ষিকী পালন আশাশুনিতে সংবাদ প্রকাশের জের ধরে ডাঃ মৃণাল কে জীবননাশের হুমকি   নীলাকাশ বার্তার প্রতিনিধিদের কার্ড বিতারণ অনুষ্ঠান দৈনিক আজকের সারাদেশ পত্রিকার প্রতিনিধির বাবার ইন্তেকাল দর্শনার্থীদের সহযোগিতায় কবি জসিমউদদীনের কবিতার সেই আসমানীর কবর পাকাকরণ দর্শনার্থীদের সহযোগিতায় কবি জসিমউদদীনের কবিতার সেই আসমানীর কবর পাকাকরণ খুলনার মহাসমাবেশে বিএনপি নেতৃবৃন্দ এ সরকারের কাছে দাবি না করে আন্দোলন সংগ্রামের মাধ্যমে দাবি আদায় করতে হবে বাংলাদেশ কারাতে ফেডারেশনের সহযোগিতায় ও আন্তর্জাতিক শেইশিন রিউ কারাতে প্রতিযোগীতা বাংলাদেশ মুক্তিযোদ্ধা সন্তান সংসদ জেলা কমান্ডের মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সভা খুলনা জেলা ডিবি পুলিশের অভিযানে ৫০ পিচ ইয়াবা সহ গ্রেফতার-১ আশাশুনিতে আমের মুকুলে মৌ মৌ গন্ধে মুখরিত চারদিক মির্জাগঞ্জে একমাত্র নারী রিকশা চালোক প্রতিবন্ধী রোজিনা রূপসা থানা পুলিশের অভিযানে ইয়াবাসহ ২ জন গ্রেফতার কোতোয়ালি থানা বিএনপি’র উদ্যোগে সংবাদ সম্মেলন আশাশুনিতে মারপিট করে ব্যবসায়ীকে টাকা ছিনতাই মুক্তিযোদ্ধা তালিকায় নামঞ্জুরকৃত নাথ অনিল কুমার এর কোটি কোটি টাকার উৎস কোথায়? শ্যামনগরে জমিজমা সংক্রান্ত বিরোধে বিধবার বসত ঘরে আগুন, আদালতে মামলা খুলনায় এমপি শেখ জুয়েল ও তার পরিবারের সুস্থতা কামনায়  দোয়া অনুষ্ঠিত  আশাশুনিতে আমের মুকুলে মৌ মৌ গন্ধে মুখরিত চারদিক খুলনার দিঘলিয়ায় খাল থেকে তামিম মোল্লা নামের এক শিশুর লাশ উদ্ধার  ফরিদপুর কানাইপুর সড়কে দূর্ঘটনায় ঘটনাস্থলে নিহত ১, ট্রেনের ধাক্কায় ট্রাক চালকসহ আহত ২

মাদারীপুরে বারি সরিষা-১৪ ও ১৮ এর উপর মাঠ দিবস অনুষ্ঠিত

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ বাংলাদেশ কৃষি গবেষণা ইনস্টিটিউট (বারি) এবং  ফরিদপুর সরেজমিন গবেষণা বিভাগ (সগবি) কর্তৃক আয়োজিত গত ৪ফেব্রুয়ারি মাদারীপুর সদর উপজেলার শ্রীনাথদি ইউনিয়নের কলাবাড়ী গ্রামে বারি সরিষা-১৪ ও ১৮ জাতের উৎপাদন কার্যক্রমের উপর মাঠ দিবস অনুষ্ঠিত হয়েছে।
ফরিদপুর সরেজমিন গবেষণা বিভাগ (বারি) অঞ্চল প্রধান বৈজ্ঞানিক কর্মকর্তা ড. সেলিম আহম্মেদ এর সভাপতিত্বে  অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন বরিশাল আঞ্চলিক কৃষি গবেষণা কেন্দ্রের মূখ্য বৈজ্ঞানিক কর্মকর্তা মোঃ রফিউদ্দিন। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন মাদারীপুর আঞ্চলিক ডাল গবেষণা কেন্দ্রের মুখ্য বৈজ্ঞানিক কর্মকর্তা ড. মো. ছালেহ উদ্দিন, মাদরীপুর কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের উপপরিচালক মো. মোয়াজ্জেম হোসেন, প্রধান বৈজ্ঞানিক কর্মকর্তা ও প্রকল্প পরিচালক ড. মো. মোস্তাফিজুর রহমান তালুকদার।
এছাড়া অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন  ফরিদপুর সরেজমিন গবেষণা বিভাগ ( বারি) এর বৈজ্ঞানিক কর্মকর্তা, এ.এফ.এম. রুহুল কুদ্দুস।
এসময় মাঠ দিবস সমাবেশে সংশ্লিষ্ট গ্রাম ও পার্শ্ববর্তী গ্রাম থেকে আগত অর্ধশতাধিক চাষী ও স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গসহ সগবি, বারি, ফরিদপুরের মাঠ পর্যায়ে কর্মরত বৈজ্ঞানিক সহকারীবৃন্দ এবং স্থানীয় উপসহকারী কৃষি কর্মকর্তা উপস্থিত ছিলেন।
অনুষ্ঠানটি সঞ্চালনা করেন রাজবাড়ীর এমএলটি সাইটের বৈজ্ঞানিক সহকারী জনাব সাইফুর রহমান।
মাঠ দিবস অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে বলেন, বর্তমানে বাংলাদেশে প্রায় ৫.৫ লক্ষ হেক্টর জমিতে সরিষা আবাদ হয় যা থেকে প্রায় ২ লক্ষ মেট্রিক টন তেল পাওয়া যায়। এদেশের কৃষকরা সাধারণত স্থানীয় জাতের সরিষার আবাদ করে থাকে যার হেক্টর প্রতি গড় ফলন মাত্র ৮৫০ কেজি বা প্রতি শতাংশে ৩.৫ কেজি। বাংলাদেশ কৃষি গবেষণা ইনস্টিটিউট বারি সরিষা-১৪, বারি সরিষা-১৫ ও বারি সরিষা-১৭ নামে যে স্বল্পমেয়াদী জাত উদ্ভাবন করেছে তার গড় ফলন প্রতি হেক্টরে ১.৪ থেকে ১.৮ টন বা প্রতি শতাংশে প্রায় ৬ কেজি। যেসব কৃষকেরা দীর্ঘমেয়াদী (১০০-১২০ দিন) সরিষার জাত ব্যবহার করতে চান, তারা বারি সরিষা-১৮ (ক্যানোলা জাত) ব্যবহার করতে পারেন যা রান্নার তেল হিসেবে ব্যবহার হয়। বারি সরিষা -১৪ চেয়ে বারি সরিষা-১৮ শতাংশে প্রায় ২ থেকে ৬ কেজি বেশী ফলন দিয়ে থাকে। তাই, নতুন জাত আবাদে কৃষক আর্থিকভাবে লাভবান হয় ও খুব সহজে তাদের প্রচলিত ফসল ধারায় খাপ খাওয়াতে পারেন। কৃষকদের নতুন জাত ও প্রযুক্তি দ্বারা সরিষা আবাদের জন্য প্রধান অতিথি অনুরোধ করেন ফলে দেশে তেলের চাহিদা অনেকাংশে পূরণ করা সম্ভব হবে।
সমাবেশে বারি সরিষা-১৪ ও ১৮ জাত সম্বন্ধে বিস্তারিত বর্ণনা দেন উপস্থিত অতিথিবৃন্দ। অংশগ্রহনকারী কৃষকগণের বিভিন্ন প্রশ্নের উত্তর আমন্ত্রিত অতিথিবৃন্দ প্রদান করেন। তাঁদেরকে সহায়তা করেন বৈজ্ঞানিক সহকারীবৃন্দ।
মাঠ দিবস অনুষ্ঠানে অংশগ্রহনকারী কৃষকগণ বারি সরিষা-১৪ ও ১৮ এর প্রতি কৌতুহলী হন এবং এর আবাদে সুবিধা-অসুবিধা, আয়-ব্যয় ইত্যাদি সম্বন্ধে সম্যক ধারনা লাভ করেন। সগবি, ফরিদপুর এর তত্তাবধানে মাদারীপুরে ১০০ শতক জমিতে বারি সরিষা-১৪ ও ৩০০ শতক জমিতে বারি সরিষা-১৮ আবাদ করা হয়েছে। কৃষকেরা তাদের আবাদকৃত প্রচলিত তিন ফসল ভিত্তিক ফসল বিন্যাসে এ বারি সরিষা-১৪ ও ১৮ জাতটির সন্নিবেশনের প্রতি আগ্রহ প্রকাশ করেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *