দুপুর ১২:২২ । ৪ঠা আষাঢ়, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ । ১৮ই জুন, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ । ৮ই জিলকদ, ১৪৪২ হিজরি ।

শিরোনামঃ
বোয়ালমারীতে বিচার চেয়ে দ্বারে দ্বারে ঘুরছে কৃষক নিলচান মল্লিক বোয়ালমারীতে ছাত্রলীগের আনন্দ মিছিল ভাঙ্গায় চাঞ্চল্যকর সেকেন্দার হত্যাকান্ডের প্রতিবাদে মানববন্ধন-বিক্ষোভঃ জড়িতদের শাস্তির দাবী আশাশুনি শ্রীউলা সড়কে মহিষকুড় এলাকায় চরম দুর্গতি আশাশুনিতে আরও ১১ জন করােনা পজেটিভ আশাশুনিতে র‌্যাপিড টেস্ট ডিভাইস ব্যবহারে নমুনা সংগ্রহ শুরু সালথায় সিংহ পরিবারের ঐতিহ্য সংরক্ষণের দাবিতে ২১ সংগঠনের মানববন্ধন ডাকাতির প্রস্তুতিকালে অস্ত্রশস্ত্র ও মাদকসহ ছয়জন ডাকাত গ্রেফতার ফরিদপুরে মাদকসহ আটক দুইজন আশাশুনিতে ভ্রাম্যমাণ আদালতে জরিমানা রূপসায় জুম কনফারেন্সে এমপি সালাম মুর্শেদী : রূপসা, তেরখাদা ও দিঘলিয়ার মানবসেবায় আছি ভবিষ্যতেও থাকবো বোয়ালমারীতে ২২ ঘন্টার মধ্যে  শিশু ধর্ষণ চেষ্টা  মামলায়  অভিযোগপত্র  দিল পুলিশ তথ্য অধিকার আইন-২০০৯” অবহিত শীর্ষক কর্মশালা অনুষ্ঠিত ফরিদপুরে প্রদর্শনী ফুটবল ম্যাচ : জুনিয়রদের কাছে হেরে গেল সিনিয়র একাদশ মসজিদে মসজিদে সচেতনতা মূলক বক্তব্য দিচ্ছেন পাংশা মডেল থানা (ওসি)মোহাম্মদ শাহাদাত হোসেন খুলনা জেলা করোনাভাইরাস প্রতিরোধ কমিটির সভা : সমগ্র জেলায় এক সপ্তাহের বিধিনিষেধ আরোপ রূপসার দেবীপুরে দুই গরু চোর জনতার হাতে ধৃত বোয়ালমারীতে তিন ইউপি চেয়ারম্যান মামলার প্রধান আসামি কালুখালি থানা এলাকার মসজিদে মসজিদে সচেতনতা মূলক বক্তব্য দিচ্ছেন ওসি এক নারী মা ও মানবপ্রেমী সারমিন সালাম স্বীয় গুণে ধ্রুবতারার ন্যায় জ্বলছে ফরিদপুরে সোশ্যাল সিকিউরিটি স্কিমের আওতায় মৃত্যু দাবির চেক প্রদান মধুখালীতে পাটের পাওনা টাকা আদায়ের দাবিতে সংবাদ সন্মেলন পাংশায় সাংবাদিকদের সাথে মতবিনিময় করলেন নবাগত সার্কেল ফরিদপুরে লাজ ফার্মা ও ডিপার্টমেন্ট স্টোরের ২য় শাখার উদ্বোধন চরভদ্রাসনে গাঁজা গাছ সহ আটক ১ ফরিদপুরে একচুয়াল কোর্ট খোলার দাবিতে জেলা আইনজীবী সমিতির মানববন্ধন অনুষ্ঠিত ৬ষ্ঠ মৃত্যু বার্ষিকী ইসহাক আলী দুলাল অপমৃত্যু মামলা এক ঘন্টার মধ্যে নিষ্পত্তি সংক্রান্তে প্রেস বিজ্ঞপ্তি বোয়ালমারীতে ড্রেন নির্মাণে পাথরের পরিবর্তে ইট ব্যবহারের অভিযোগ রাজবাড়ীতে ৫ লাখ টাকা ও ২ কেজি গাঁজা সহ গ্রেফতার ২

মীনার স্বপ্নপূরণের সহযাত্রী ফরিদপুর জেলা প্রশাসন

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ সুরাইয়া আক্তার মীনা [ছদ্মনাম]। ফরিদপুর জেলা শহরের এক কোনে ক্ষুদ্র একখন্ড পৈত্রিক নিবাসে বসবাস। পরিবারের অসুস্থ মা আর বাবা রয়েছে। দুবোনের মাঝে সে সবার ছোট। বড় বোনের বিয়ে হয়েছে কয়েক বছর। পিতা কর্মহীন গত ৯ মাস যাবত। এছাড়া পিতার বয়সও হয়েছে। কর্মহীন পিতার পরিবারে অন্যকোন উপার্জনক্ষম ব্যক্তি না থাকায় আত্মীয় স্বজনের সহায়তা আর এর ওর কাছ থেকে চেয়ে চিন্তে কোন রকমে সংসার চলছিল। এরই মাঝে বহুকষ্টে মীনা তার পড়ালেখা টিকিয়ে রেখেছিল। অসুস্থ মায়ের সেবা করতে করতে মীনার মনে একসময় একটা স্বপ্ন জাগে বড় হয়ে ডাক্তার হবে। পরিবারের অর্থনৈতিক দুরাবস্থার কথা চিন্তা করে, মনের ভেতরেই সে স্বপ্ন রেখে দেয় মীনা।
ছাত্রী হিসেবে মীনা খুব মেধাবী। গত বছর কৃতিত্বের সাথে উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষায় পাশ করে। পাশ করার পরেই পড়ে আরো বিড়ম্বনায়। সংসারই যেখানে চলছে না, সেখানে মীনার পড়ালেখা দুঃসাধ্য। এরই মাঝে আবার ভাল কোন বিশ্ববিদ্যালয়ে বা প্রতিষ্ঠানে পড়ালেখা চরম অসম্ভব কল্পনা মাত্র।
তবুও থেমে থাকেনি মীনা। ভাল প্রতিষ্ঠানে ভর্তি হওয়ার জন্য বাড়িতে বসেই প্রস্তুতি নিতে থাকে। বহুকষ্টে কিছু অর্থ সংস্থান করে মেডিকেল কলেজে ভর্তি পরীক্ষা দেয়। মনের সুপ্ত স্বপ্ন আর অর্থনৈতিক টানাপোড়েন এরই মাঝে অসম্ভব সম্ভাবনার স্বপ্ন বাস্তব হিসেবে দেখা দেয় মেডিকেল কলেজে ভর্তি পরীক্ষার ফলাফলে। মীনা চান্স পায় মেডিকেলে ডাক্তারী পরীক্ষার। কিন্তু বিধি বাম ভর্তি এবং বইপুস্তক কেনার মত টাকা তার পরিবারের দেয়ার উপায় নাই।
কারো নিকট থেকে সাহায্য নিয়ে ভর্তি হবে, এটাও সম্ভব নয়, কেননা সাহয্যের জন্য একই ব্যক্তিদের নিকট কতবার যাওয়া যায়?
চরম দুচিন্তায় সময় যাচ্ছিল মীনার পরিবারের। এরই মাঝে জেলা প্রশাসকের নিকট আবেদন করতে বলে এক পরিচিত ব্যক্তি। তার কথামত গতকাল ৯ মে, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ বাবাকে নিয়ে জেলা প্রশাসকের বাংলোতে আসে মীনা। ভর্তি ও বই কেনার জন্য আবেদন করে। ফরিদপুরের জেলা প্রশাসক অতুল সরকার তার কথা শুনে তাৎক্ষনিক ভর্তি বই কেনা ও প্রাথমিক খরচের জন্য নগদ অর্থ সহায়তা করেন। একই সাথে তার ভবিষ্যতে নিজ পায়ে দাড়াতে সর্বাত্বক সহায়তার আশ্বাস দেন।
জেলা প্রশাসকের তাৎক্ষনিক এই সেবায় আবেগপন্ডুত মীনার বাবা বলেন, কোন উপায় ছিল না। ভর্তির সময়ও খুব নেই। এই উপকার পেয়ে আমার মেয়ের জীবনটাই পাল্টে যাবে। ওর স্বপ্নপূরণে ডিসি অতুল সরকার যে সহযোগিতা করলেন, তার ঋণ কোন দিন শোধ হওয়ার নয়। ভবিষ্যতে ডাক্তার হয়ে আমার মেয়েও প্রকৃত মেধাবীদের সহযোগিতায় এগিয়ে আসবে বলে তিনি প্রত্যয় ব্যক্ত করেন। মীনা বলেন, আমার স্বপ্নপূরণে সহযাত্রী হয়েছে ফরিদপুর জেলা প্রশাসন অতুল সরকার যেভাবে আমাকে দ্রæততার সাথে সহায়তা করলেন আমি কোনদিন কল্পনাও করিনি কেউ এভাবে সাহায্য করবে। তিনি বলেন, আমি ভর্তির হওয়ার চিন্তায় দুদিন যাবত অসুস্থ হয়ে পড়েছিলাম। আজ থেকে আমার চিন্তা দূর হলো। আমি চেষ্টা করবো ডাক্তার হয়ে নিজেকে পরিপূর্ণ ভাবে মানুষের সেবায় নিয়োজিত করতে। আর আমার পথ প্রদর্শক হয়ে থাকবেন আজকের ফরিদপুরের জেলা প্রশাসক অতুল সরকার।


Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *