Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

বোয়ালমারী প্রতিনিধি : ফরিদপুরের বোয়ালমারী  উপজেলার দাদপুর ইউনিয়নের পূর্বভাটদী গ্রামের বাসিন্দা নিলচান মল্লিক (৬৩) ন্যায় বিচারের দাবীতে দ্বারে দ্বারে ঘুরছে। সোমবার (১৪ জুন) নিলচান মল্লিকের অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, পূর্বভাটদী ৩১ নং মৌজার ৬ একর ৯১ শতাংশ জমি তার (নিলচান মল্লিক) ও তার পিতা আইনউদ্দিন মল্লিকের নামে রয়েছে। ওই ৬ একর ৯১ শতাংশ জমি একই গ্রামরে মোঃ চুন্নু মল্লিক (৪৫) গংরা দখলের চেষ্টা করছে। এই জমিতে নিলচান মল্লিক চাষবাস করতে গেলে চুন্নু মল্লিক গং তাকে খুন জখম করার ভঁয় ভীতি দেখিয়ে তারিয়ে দেয়। জমিতে থাকা তাল গাছ বিক্রি করতে গেলে বাঁধা দেয় এবং জমির মধ্যে তিনটি পুকুর রয়েছে এমনকি পুকুরে মাছ মাষ করতে বাঁধা দিচ্ছে। সে জমিতে গেলে চুন্নু মল্লিক তার লোকজন নিয়ে জমির মালিককে তারিয়ে দেয় বলে অভিযোগ করেন। এ ঘটনায় নিলচান মল্লিক বিচারের দাবিতে চুন্নু মল্লিককে প্রধান করে আটজনের নামে বোয়ালমারী থানায় একটি লিখিত অভিযোগ করেছেন।  নিলচান মল্লিক বলেন, চুন্নু মল্লিক গংদের পিছনে বড় ধরনের একটি শক্তি রয়েছে। যার কারনে তারা আমার নিজের রাখা সম্পত্তি এবং আমার পৈতিক সম্পতি দখলের চেষ্টা করছে। আমি জমিতে চাষবাস করতে গেলে আমাকে জীবন নাশের হুমকী দিয়ে এবং বিভিন্ন ভঁয়ভিতী দেখিয়ে জমি থেকে তারিয়ে দেয়। আমি আমার পরিবার নিয়ে জীবন নিরাপত্তা হীনতায় ভূগছি। যার কারনে আমি বিচারের দাবিদী বোয়ালমারী থানায় একটি লিখিত অভিযোগ করেছি।
এব্যাপারে চুন্নু মল্লিকের সাথে যোগাযোগ করা সম্ভব হয়নি বলে তার বক্তব্য দেয়া সম্ভব হলো না।
এব্যাপারে সোমবার অভিযোগ পাওয়ার কথা নিশ্চিত করে জয়নগর পুলিশ ফাড়ির ইনচার্জ এস আই পলাশ বলেন, তাদের কিছু জমি নিয়ে কোর্টে মামলা ছিলো। মামলার রায় নিলচান মল্লিকের পক্ষে হয়েছে। ওই জমি নিয়েই ঝামেলা চলছে। আমি অভিযোগ তদন্ত করে আদালতে পাঠিয়ে দিবো।

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •