Spread the love

রবিউল হাসান রাজিবঃ ২২ জানুয়ারি ২০২২ শনিবার সকাল-১০ টায় কবি জসিমউদদীন হলে কৃষক বাঁচাও, দেশ বাঁচাও স্লোগানকে সামনে নিয়ে বাংলাদেশ কৃষক লীগ ফরিদপুর জেলা শাখার আয়োজনে বিশেষ বর্ধিত সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। এ সময় কৃষক লীগের কেন্দ্রীয় কমিটির নের্তৃবৃন্দদেরকে ফুল দিয়ে বরণ করে নেন জেলার নের্তৃবৃন্দরা।
অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন, বাংলাদেশ কৃষক লীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি বীর মুক্তিযােদ্ধা শরীফ আশরাফ আলী।
এ অনুষ্ঠানে উদ্বোধক হিসেবে মুঠোফোনের মাধ্যমে উদ্বোধন ঘোষণা করেন ফরিদপুর জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযােদ্ধা এ্যাড. শামসুল হক (ভােলা মাস্টার)।
বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ কৃষক লীগের সহ-সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা মিয়ান আঃ ওয়াদুদ, সহ-সাংস্কৃতিক সম্পাদক কামরুল ইসলাম লিটু, সহ-স্বাস্থ্য বিষয়ক সম্পাদক এ্যাড. জামাল হোসেন মুন্না, সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধা কবিরুল আলম মাও, ফরিদপুর জেলা স্বেচ্ছাসেবকলীগের সভাপতি শওকত আলী জাহিদ।
প্রধান বক্তা হিসেবে উপস্থিত থেকে বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ কৃষক লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক নুরে আলম সিদ্দিকী হক।
এ সভায় আরও উপস্থিত ছিলেন ফরিদপুর সদর উপজেলা কৃষক লীগের আহ্বায়ক ও জেলা পরিষদের সদস্য শেখ আকতার, বোয়ালমারী উপজেলা সদস্য সচিব শরিফ শাহিনুর রহমান, সদরপুর মালেক বাছার, ভাঙ্গা উপজেলার  ইস্রাফিল ফকির সহ উপজেলা ও ২টি পৌরসভার সভাপতি সাধারণ সম্পাদক, কৃষকলীগ সহ বিভিন্ন ইউনিয়ন ও ওয়ার্ডের নের্তৃবৃন্দ।
এ সভায় প্রধান বক্তা হিসেবে নূরে আলম সিদ্দিকী হক বলেন ফরিদপুর কৃষক লীগের কমিটির বিষয়ে সকলকে সাংগঠনিকভাবে ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ বাস্তবায়নের নির্দেশনা দেন। তিনি বলেন, বাংলাদেশ কৃষকলীগ দুর্নীতিবাজ না, টেন্ডারবাজ না, ধান্দাবাজও না। একটা নীতি ও আদর্শ নিয়ে কৃষকলীগ কাজ করে। এজন্য হয়তো কৃষকলীগ অনেকের কাছে গুরুত্বহীন। সুতরাং নিজেরাই সাংগঠনিকভাবে শক্তিশালী হলে, সকলেই মূল্যায়ন করবে। কমিটি গঠনের সময় যত বাঁধা বিপত্তি আসুক, আমাদের জানাবেন। আমরা সমন্বয় করে সফল করে তুলবো।
তিনি আরো বলেন, কৃষকলীগ দুর্বল থাকবে এটা বিশ্বাস করি না। কারন, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী দিনরাত নিরলসভাবে কৃষকদের নিয়ে কাজ করে যাচ্ছেন। কৃষকদের ভাগ্য উন্নয়নে কৃষি অধিদপ্তরের মাধ্যমে বিভিন্নভাবে কাজ করে যাচ্ছেন। যতদিন থাকবে শেখ হাসিনার হাতে দেশ, ততদিন পথ হারাবে না বাংলাদেশ।
অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি বলেন, জেলায় বড় বড় পদ নিয়ে যারা বসে আছেন বা সভা অনুষ্ঠানে আসেন না বা সাংগঠনিক কার্যক্রম বৃদ্ধি করেন না তাদেরকে কারন দর্শানোর নোটিশ করতে হবে। উপযুক্ত কারণ দেখাতে না পারলে তাকে বহিষ্কার করে দিবেন বলে জানান।
অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন ফরিদপুর জেলা কৃষক লীগের সভাপতি ও জেলা পরিষদের সদস্য শেখ শহীদুল ইসলাম শহীদ।
এ সভায় সভাপতির বক্তব্যে তিনি বলেন, আকষ্মিকভাবে পুনরায় করোনার আক্রমণ বৃদ্ধি হওয়ায় সরকারি নির্দেশনা বাস্তবায়নের জন্য এ সভায় নের্তৃবৃন্দের উপস্থিতি কমানো হয়েছে।
এ অনুষ্ঠান সঞ্চালনায় ছিলেন ফরিদপুর জেলা কৃষক লীগের সাধারণ সম্পাদক এ্যাড. প্রদীপ কুমার দাস লক্ষন।
অনুষ্ঠানে আগত উপজেলার নের্তৃবৃন্দরা আগামী ১ মাসের মধ্যে পুর্নাঙ্গ কমিটি ঘোষণা করার অঙ্গীকার করেন।
অনুষ্ঠানের শুরুতে সকল শহীদদের আত্মার প্রতি মাগফেরাত কামনা করা হয় ও দাঁড়িয়ে এক মিনিট নিরবতা পালন করা হয়েছে।


Spread the love