Spread the love

মোঃ মহিউদ্দিন, ভাংগা প্রতিনিধি: প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ড্রিম প্রজেক্ট- ‘আশ্রয়ণ’ এর আওতায় এবার ঈদে সারাদেশে ৩২,৯০৪টি ভূমিহীন ও গৃহহীন পরিবারকে জমি ও ঘর দেওয়া হচ্ছে। এরই অংশ হিসেবে ভাঙ্গা উপজেলায় ৩য় পর্যায়ে দক্ষিণ গঙ্গাদরধী ও মুনসুরাবাদ মৌজায় দৃষ্টিনন্দন লোকেশনে ২২০ টি পরিবার ০২ শতাংশ জমি ও দুই কক্ষ বিশিষ্ট একক ঘর পেতে যাচ্ছে। আগামীকাল ২৬ এপ্রিল বঙ্গবন্ধুকন্যা গণভবন হতে ভিডিও কনফারেন্সিং এর মাধ্যমে এসব জমি ও ঘর উপকার ভোগীদের কাছে হস্তান্তর করবেন। এ উপলক্ষে আজ ভাংগা উপজেলা প্রশাসন উপজেলা প্রেস কনফারেন্স কক্ষে সাংবাদিকদের নিয়ে এক প্রেস ব্রিফিংয়ের আয়োজন করেন। উক্ত প্রেস ব্রিফিংয়ে উপস্থিত ছিলেন মোঃ আজিম উদ্দিন, উপজেলা নির্বাহী অফিসার, ভাংগা-ফরিদপুর, এস.এম মুস্তাফিজুর রহমান, সহকারী কমিশনার (ভূমি), ভাংগা-ফরিদপুর সহ বিভিন্ন প্রিন্ট ও ইলেকট্রনিক্স মিডিয়ার সাংবাদিকবৃন্দ।

উক্ত প্রেস ব্রিফিংয়ে মোঃ আজিম উদ্দিন, উপজেলা নির্বাহী অফিসার, ভাংগা-ফরিদপুর দৈনিক আজকের সারাদেশকে বলেন, মুজিববর্ষ উপলক্ষে আশ্রয়ণ প্রকল্প পৃথিবীর সর্ববৃহৎ ও একমাত্র প্রকল্প যাতে একসঙ্গে এত পরিবারের জীবনমান উন্নয়ন করা হয়েছে। আশ্রয় স্থলের পাশাপাশি হচ্ছে কর্মসংস্থান। সমাজের মূল স্রোতের সঙ্গে চলে আসবে পিছিয়ে পড়া একটি বড় জনগোষ্ঠী ।

এই বিষয়ে এস.এম মুস্তাফিজুর রহমান, সহকারী কমিশনার (ভূমি), ভাংগা-ফরিদপুর দৈনিক আজকের সারাদেশকে বলেন, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশনা অনুযায়ী মুজিব শতবর্ষে একজন মানুষও গৃহহীন থাকবে না। আশ্রয়হীন মানুষকে মাথা গোঁজার ঠাঁই করে দিয়ে আয়বর্ধক কাজে সম্পৃক্ত করার মাধ্যমে বিশ্বে দারিদ্র্য বিমোচনের নতুন মডেলের প্রবর্তন করেছে বাংলাদেশ।


Spread the love